বিজ্ঞান জোকস? ...

বিজ্ঞান জোকস : বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-১ চিকিৎসা বিজ্ঞানের উন্নতি বিষয়ক আন্তর্জাতিক সেমিনার হচ্ছিলো। ইংল্যাণ্ডের ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে একটা শিশু জন্ম নিলো যার একটা পা ছিল না। আমরা নকল পা লাগিয়ে দিলাম। বড় হয়ে সে অলিম্পিকে ১০০ মিটার দৌড়ে চ্যাম্পিয়ন হলো! জার্মানির ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে এক শিশু জন্ম নিলো যার দু’টি হাত ছিল না। আমরা নকল হাত লাগিয়ে দিলাম। বড় হয়ে সে মুষ্টিযুদ্ধে স্বর্ণপদক পেলো!! সবশেষে বাংলাদেশের ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে একদা দু’টি মেয়ে শিশু জন্ম নিলো- যাদের হাত-পা সবই ঠিক ছিল, শুধু মাথায় মগজ ছিল না। আমরা সেখানে গোবর ঢুকিয়ে দিলাম। বললে বিশ্বাস করবেন কিনা জানি না, দু’জনেই দেশের শীর্ষপদে বসেছিলেন। বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-২ বিজ্ঞানের চরম উৎকর্ষের যুগে আমেরিকায় ভিন্ন ধরনের এক মেলা বসেছে। মানবদেহের বিভিন্ন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ বিক্রি হচ্ছে। যার যেটা দরকার কিনে নিয়ে গিয়ে নিজ শরীরে লাগিয়ে নিচ্ছে। একজন এসেছে নিজের জন্য মগজ কিনতে। স্টলে গিয়ে মগজ পছন্দ করে দাম জানতে চাইলে দোকানি বললো, এটা বিজ্ঞানী আইনস্টাইনের মগজ, দাম দুইশ’ ডলার। ক্রেতা আরো দামি মগজ চাইতেই দোকানি একটা মগজ দেখিয়ে বললো, এটা নিয়ে যান, পুরো পাঁচশ’ ডলার দাম পড়বে। - কেন, এত বেশি কেন? কার মগজ এটা? : এক বাংলাদেশি নেতার। একটু পুরানো, কিন্তু একদম ফ্রেশ। ওই দেশের নেতাদের মগজ সারাজীবনই অব্যবহৃত থাকে কিনা! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৩ তৃতীয় বিশ্বের কোন এক উন্নয়নশীল রাষ্ট্রের দুই নেত্রী একই প্লেনে বিদেশে যাচ্ছেন। একজন একটি চকচকে একশ’ টাকার নোট প্লেনের জানালা দিয়ে নিচে ফেলে দিলেন। তারপর অপরজনকে শুনিয়ে বললেন, আমি আমার দেশের একজন মানুষের উপকার করলাম! এই দৃশ্য দেখে অপর নেত্রী পাঁচটি একশ’ টাকার নোট বের করে একই কান্ড করলেন এবং জোর গলায় বললেন, আমি পাঁচজন মানুষের উপকার করলাম!! সবকিছু দেখে পাইলট আফসোস করে বললেন, আহা আমি যদি দু’জনকেই ফেলে দিতে পারতাম, তবে ১৮ কোটি মানুষের উপকার হতো!!! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৪ একজন রাজনৈতিক নেতা এক ভদ্রলোককে রাজনীতিতে নামানোর জন্য ফুসলাচ্ছেন। কিন্তু ভদ্রলোক কিছুতেই রাজি হচ্ছেন না। তাঁর ভাষ্য- আমরা অতিশয় সাধারণ মানুষ, আমার চৌদ্দ পুরুষের কেউ কোনদিন রাজনীতি করেনি; ওই পথ আমার জন্যে নয়। তবু নেতা দমবার পাত্র নন। স্বভাবসুলভ বাকপটুতায় বললেন, ধরুন কারো বাপ-দাদা গরু চোর ছিল, তাই বলে কি ছেলেকেও গরু চুরিতে নামতে হবে? - তা কেন, তবে ও রকম হলে আমি নির্ঘাৎ রাজনীতিতে নাম লেখাতাম! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৫ একবার দশজন রাজনীতিবিদকে বহনকারী একটি হেলিকপ্টার দূর গ্রামে বিধ্বস্ত হলো। খবর পেয়ে রাজধানী থেকে উদ্ধারকারী দল রওনা হলো। ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে পৌঁছাতে সন্ধ্যা প্রায়। দেখা গেল, গ্রামবাসীরা ইতোমধ্যে দশজনকেই দাফন করে ফেলেছে- সারিবদ্ধ দশটি কবর। উদ্ধারকারী দলনেতা জানতে চাইলেন, সবাই কি ঘটনাস্থলেই মারা গেছেন? - কবর দেওয়ার আগ পর্যন্ত দুইজন বলছিলেন যে, তারা মারা যাননি। কিন্তু আমরা সে কথায় কর্ণপাত করিনি। জানেনই-তো রাজনীতিবিদদের সব কথা বিশ্বাস করতে নেই! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৬ একবার বনমন্ত্রী সুন্দরবন পরিদর্শনে গেলেন। গহীন জঙ্গলে তিনি কিছু লোহা-লক্কর পড়ে থাকতে দেখলেন। তৎক্ষণাৎ স্থানীয় কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিলেন এগুলো দেখে-শুনে রেখো। সুতরাং নৈশপ্রহরী নিয়োগ দেওয়া হলো। কিছুদিন পর তার কাজ তদারকি করার জন্যে সুপারভাইজার নিয়োগ করা হলো। এই দু’জনের ছুটিছাটা দেখার জন্যে নিযুক্ত হলো প্রশাসনিক কর্মকর্তা। আর তিনজনের বেতন-ভাতা হিসাব-নিকাশ করবেন সদ্য নিযুক্ত হিসাবরক্ষক। এক্ষণে অর্থ মন্ত্রণালয়ের টনক নড়লো। তারা আপত্তি জানিয়ে বললো, এত লোকের বেতন দেওযা যাবে না, লোক কমাও। বিষয়টি বনমন্ত্রীকে জানানো হলো। তিনি বললেন, সরকারি কাজকর্ম হবে দিনের আলোয়, রাতে লোক রাখার দরকার কী? তাই নৈশপ্রহরীর দরকার নেই। ওকে আগে চাকরি থেকে বিদায় করো!
Romanized Version
বিজ্ঞান জোকস : বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-১ চিকিৎসা বিজ্ঞানের উন্নতি বিষয়ক আন্তর্জাতিক সেমিনার হচ্ছিলো। ইংল্যাণ্ডের ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে একটা শিশু জন্ম নিলো যার একটা পা ছিল না। আমরা নকল পা লাগিয়ে দিলাম। বড় হয়ে সে অলিম্পিকে ১০০ মিটার দৌড়ে চ্যাম্পিয়ন হলো! জার্মানির ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে এক শিশু জন্ম নিলো যার দু’টি হাত ছিল না। আমরা নকল হাত লাগিয়ে দিলাম। বড় হয়ে সে মুষ্টিযুদ্ধে স্বর্ণপদক পেলো!! সবশেষে বাংলাদেশের ডাক্তার বললেন, আমাদের দেশে একদা দু’টি মেয়ে শিশু জন্ম নিলো- যাদের হাত-পা সবই ঠিক ছিল, শুধু মাথায় মগজ ছিল না। আমরা সেখানে গোবর ঢুকিয়ে দিলাম। বললে বিশ্বাস করবেন কিনা জানি না, দু’জনেই দেশের শীর্ষপদে বসেছিলেন। বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-২ বিজ্ঞানের চরম উৎকর্ষের যুগে আমেরিকায় ভিন্ন ধরনের এক মেলা বসেছে। মানবদেহের বিভিন্ন অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ বিক্রি হচ্ছে। যার যেটা দরকার কিনে নিয়ে গিয়ে নিজ শরীরে লাগিয়ে নিচ্ছে। একজন এসেছে নিজের জন্য মগজ কিনতে। স্টলে গিয়ে মগজ পছন্দ করে দাম জানতে চাইলে দোকানি বললো, এটা বিজ্ঞানী আইনস্টাইনের মগজ, দাম দুইশ’ ডলার। ক্রেতা আরো দামি মগজ চাইতেই দোকানি একটা মগজ দেখিয়ে বললো, এটা নিয়ে যান, পুরো পাঁচশ’ ডলার দাম পড়বে। - কেন, এত বেশি কেন? কার মগজ এটা? : এক বাংলাদেশি নেতার। একটু পুরানো, কিন্তু একদম ফ্রেশ। ওই দেশের নেতাদের মগজ সারাজীবনই অব্যবহৃত থাকে কিনা! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৩ তৃতীয় বিশ্বের কোন এক উন্নয়নশীল রাষ্ট্রের দুই নেত্রী একই প্লেনে বিদেশে যাচ্ছেন। একজন একটি চকচকে একশ’ টাকার নোট প্লেনের জানালা দিয়ে নিচে ফেলে দিলেন। তারপর অপরজনকে শুনিয়ে বললেন, আমি আমার দেশের একজন মানুষের উপকার করলাম! এই দৃশ্য দেখে অপর নেত্রী পাঁচটি একশ’ টাকার নোট বের করে একই কান্ড করলেন এবং জোর গলায় বললেন, আমি পাঁচজন মানুষের উপকার করলাম!! সবকিছু দেখে পাইলট আফসোস করে বললেন, আহা আমি যদি দু’জনকেই ফেলে দিতে পারতাম, তবে ১৮ কোটি মানুষের উপকার হতো!!! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৪ একজন রাজনৈতিক নেতা এক ভদ্রলোককে রাজনীতিতে নামানোর জন্য ফুসলাচ্ছেন। কিন্তু ভদ্রলোক কিছুতেই রাজি হচ্ছেন না। তাঁর ভাষ্য- আমরা অতিশয় সাধারণ মানুষ, আমার চৌদ্দ পুরুষের কেউ কোনদিন রাজনীতি করেনি; ওই পথ আমার জন্যে নয়। তবু নেতা দমবার পাত্র নন। স্বভাবসুলভ বাকপটুতায় বললেন, ধরুন কারো বাপ-দাদা গরু চোর ছিল, তাই বলে কি ছেলেকেও গরু চুরিতে নামতে হবে? - তা কেন, তবে ও রকম হলে আমি নির্ঘাৎ রাজনীতিতে নাম লেখাতাম! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৫ একবার দশজন রাজনীতিবিদকে বহনকারী একটি হেলিকপ্টার দূর গ্রামে বিধ্বস্ত হলো। খবর পেয়ে রাজধানী থেকে উদ্ধারকারী দল রওনা হলো। ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে পৌঁছাতে সন্ধ্যা প্রায়। দেখা গেল, গ্রামবাসীরা ইতোমধ্যে দশজনকেই দাফন করে ফেলেছে- সারিবদ্ধ দশটি কবর। উদ্ধারকারী দলনেতা জানতে চাইলেন, সবাই কি ঘটনাস্থলেই মারা গেছেন? - কবর দেওয়ার আগ পর্যন্ত দুইজন বলছিলেন যে, তারা মারা যাননি। কিন্তু আমরা সে কথায় কর্ণপাত করিনি। জানেনই-তো রাজনীতিবিদদের সব কথা বিশ্বাস করতে নেই! বিজ্ঞান জোকস কৌতুক-৬ একবার বনমন্ত্রী সুন্দরবন পরিদর্শনে গেলেন। গহীন জঙ্গলে তিনি কিছু লোহা-লক্কর পড়ে থাকতে দেখলেন। তৎক্ষণাৎ স্থানীয় কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিলেন এগুলো দেখে-শুনে রেখো। সুতরাং নৈশপ্রহরী নিয়োগ দেওয়া হলো। কিছুদিন পর তার কাজ তদারকি করার জন্যে সুপারভাইজার নিয়োগ করা হলো। এই দু’জনের ছুটিছাটা দেখার জন্যে নিযুক্ত হলো প্রশাসনিক কর্মকর্তা। আর তিনজনের বেতন-ভাতা হিসাব-নিকাশ করবেন সদ্য নিযুক্ত হিসাবরক্ষক। এক্ষণে অর্থ মন্ত্রণালয়ের টনক নড়লো। তারা আপত্তি জানিয়ে বললো, এত লোকের বেতন দেওযা যাবে না, লোক কমাও। বিষয়টি বনমন্ত্রীকে জানানো হলো। তিনি বললেন, সরকারি কাজকর্ম হবে দিনের আলোয়, রাতে লোক রাখার দরকার কী? তাই নৈশপ্রহরীর দরকার নেই। ওকে আগে চাকরি থেকে বিদায় করো! Bigyan Jokas : Bigyan Jokas Kautuk 1 Chikitsa Bigyaner Unnati Bishayak Antarjatik Seminar Hachchhilo Inglyander Daktar Balalen Amader Deshe Ekata Sishu Janma Nilo Jar Ekata PA Chhil Na Amara Naklo PA Lagiye Dilam Bar Huye Say Alimpike 100 Meter Daure Champion Holo Jarmanir Daktar Balalen Amader Deshe Ec Sishu Janma Nilo Jar Duoti Haut Chhil Na Amara Naklo Haut Lagiye Dilam Bar Huye Say Mushtijuddhe Swarnapadak Pelo Sabasheshe Bangladesher Daktar Balalen Amader Deshe Ekada Duoti Meye Sishu Janma Nilo Jader Haut PA Sabai Thik Chhil Shudhu Mathay Magaj Chhil Na Amara Sekhane Gobar Dhukiye Dilam Balale Biswas Karaben Qina JANI Na Duojanei Desher Shirshapade Basechhilen Bigyan Jokas Kautuk 2 Bigyaner Charam Utkarsher Juge Amerikay Bhinna Dharaner Ec MELA Basechhe Manabadeher Bibhinna Ong Pratyanga Bikri Hachchhe Jar Jeta Darakar Kine Niye Giye Nij Sharire Lagiye Nichchhe Ekajan Esechhe Nizar Janya Magaj Kinte Stale Giye Magaj Pachhanda Kare Daam Jante Chaile Dokani Balalo Etah Bigyani Ainastainer Magaj Daam Duisho Dollar Kreta Aro Dami Magaj Chaitei Dokani Ekata Magaj Dekhiye Balalo Etah Niye Jan Puro Panchasho Dollar Daam Parabe Can Et Bedshee Can Car Magaj Etah Ec Bangladeshi Netar Ekatu Purano Kintu Ekadam Fresh We Desher Netader Magaj Sarajibanai Abyabahrit Thake Qina Bigyan Jokas Kautuk 3 Tritiya Bishwer Koun Ec Unnayanashil Rashtrer Dui Netri Ekai Plene Bideshe Jachchhen Ekajan Ekati Chakachake Ekasho Takar Note Plener Janala Diye Niche Fele Dilen Tarapar Aparajanake Shuniye Balalen Aami Amar Desher Ekajan Manusher Upakar Karalam AE Drishya Dekhe Apr Netri Panchati Ekasho Takar Note Ber Kare Ekai Kand Karalen Evan Jor Galay Balalen Aami Panchajan Manusher Upakar Karalam Sabakichhu Dekhe Pilot Afasos Kare Balalen Aaha Aami Jodi Duojanakei Fele Dite Partam Tove 18 Koti Manusher Upakar Hato Bigyan Jokas Kautuk 4 Ekajan Rajnaitik Neta Ec Bhadralokke Rajnitite Namanor Janya Fuslachchhen Kintu Bhadralok Kichhutei Raji Hssen Na Tanr Bhashya Amara Atishay Sadharan Manus Amar Chaudda Purusher Keu Kondin Rajniti Kareni We Path Amar Janye Noy Tabu Neta Damabar Patra Non Swabhabsulabh Bakapatutay Balalen Dharun Karo Baap Dada Garu Chor Chhil Tai Ble Ki Chhelekeo Garu Churite Namte Habe Ta Can Tove O Rakam Hale Aami Nirghat Rajnitite NAM Lekhatam Bigyan Jokas Kautuk 5 Ekabar Dashajan Rajnitibidke Bahanakari Ekati Helicopter Dur Grame Bidhbasta Holo Khabar Peye Rajdhani Theke Uddharakari Dal Raona Holo Ghatanasthale Paunchhate Paunchhate Sandhya Pray Dekha Gel Gramabasira Itomadhye Dashajanakei Dafan Kare Felechhe Saribaddha Dosti Kabar Uddharakari Dalaneta Jante Chailen Sabai Ki Ghatanasthalei Mara Gechhen Kabar Dewar Aug Parjanta Doesn Balachhilen Je Tara Mara Janni Kintu Amara Say Kathay Karnapat Karini Janenai Toh Rajnitibidder Sab Katha Biswas Karate Nei Bigyan Jokas Kautuk 6 Ekabar Banamantri Sundaraban Paridarshane Gelen Gahin Jangale Tini Kichhu LUHA Lakkar Pare Thakte Dekhlen Ttkshanat Sthaniya Kartripakshake Nirdesh Dilen Egulo Dekhe Shune Rekho Sutarang Naishaprahari Niyog Dewa Holo Kichhudin Par Taur Kaj Tadaraki Karar Janye Suparbhaijar Niyog Kara Holo AE Duojaner Chhutichhata Dekhar Janye Nijukta Holo Prashasnik Karmakarta Are Tinajaner Baton Vata Hisab Nikash Karaben Sadya Nijukta Hisabarakshak Ekshane Earth Mantranalyer Tanaka Naralo Tara Apatti Janie Balalo Et Loker Baton Deoja Jabe Na Loka Kamao Bishayati Banamantrike Janano Holo Tini Balalen Sarakari Kajakarma Habe Diner Aloy Rate Loka Rakhar Darakar Key Tai Naishapraharir Darakar Nei Ok Age Chakri Theke Biday Karo
Likes  0  Dislikes
WhatsApp_icon
500000+ दिलचस्प सवाल जवाब सुनिये 😊

Similar Questions

Vokal is India's Largest Knowledge Sharing Platform. Send Your Questions to Experts.

Related Searches:Bigyan Jokas,Science Jokes?,


vokalandroid